logo
Thursday , 19 May 2022
  1. সকল নিউজ

যে আমাকে হত্যার চেষ্টা করেছে, তাকে করুণা ভিক্ষা দিয়েছি: প্রধানমন্ত্রী

প্রতিবেদক
admin
May 19, 2022 9:31 am

দুর্নীতি মামলায় সাজাপ্রাপ্ত বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়া সম্পর্কে বলতে গিয়ে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বলেছেন, যে আমাকে হত্যার চেষ্টা করেছে, বারবার তাকেই আমি করুণা ভিক্ষা দিয়েছি।

এ সময় বিএনপির নেতৃত্বশূন্যতার কথা উল্লেখ করে শেখ হাসিনা বলেন, ১০ ট্রাক অস্ত্র মামলায় এবং ২১ আগস্ট গ্রেনেড হামলার মামলায় সাজাপ্রাপ্ত আসামি তারেক জিয়া। ২০০৭ এ তত্ত্বাবধায়ক সরকারের কাছে তারেক মুচলেকা দিয়েছিল যে, জীবনে কোনও দিন রাজনীতি করবে না। এই মুচলেকা দিয়ে কিন্তু দেশ ছেড়ে চলে যায় সে। সেই বিচারের মামলার রায়ে সে সাজাপ্রাপ্ত। এতিমের অর্থ আত্মসাৎ করে সাজাপ্রাপ্ত খালেদা জিয়া।
তিনি বলেন, যাই হোক, কারাগার থেকে এখন তাকে বাসায় থাকার সুযোগ দিয়েছি, অসুস্থ সে জন্য। এটুকু মানবিকতা দেখিয়েছি। যে আমাকে হত্যার চেষ্টা করেছে, বারবার তাকেই আমি করুণা ভিক্ষা দিয়েছি, যে কারণে সে এখন বাসায় থাকতে পারে। সাজাপ্রাপ্ত আসামি হলেও এটুকু সুযোগ তাকে আমরা দিয়েছি। এটা নির্বাহী আদেশেই দেওয়া হয়েছে।

প্রধানমন্ত্রী বলেন, সাজাপ্রাপ্ত আসামি দিয়ে নির্বাচন করে জেতা যায় না। আর নির্বাচনে পরাজয় হবে জেনেই তো তারা নির্বাচনকে প্রশ্নবিদ্ধ করতে চায়। কলুষিত করতে চায়।

শেখ হাসিনা বলেন, “আজকে বিএনপি নির্বাচন নিয়ে প্রশ্ন তোলে কিন্তু তাদের নির্বাচনের ইতিহাস এতটা কলুষিত যে তাদের এ নিয়ে কথা বলার কোনও অধিকারই নাই। কোন মুখে তারা বলে?”

বুধবার রাজধানীর বঙ্গবন্ধু অ্যাভিনিউয়ে আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় কার্যালয়ে আলোচনা সভায় প্রধান অতিথির ভাষণে প্রধানমন্ত্রী এসব কথা বলেন। শেখ হাসিনার স্বদেশ প্রত্যাবর্তন দিবস উপলক্ষে আওয়ামী লীগের ত্রাণ ও সমাজকল্যাণ উপকমিটি এই আলোচনা সভার আয়োজন করে।

গণভবন থেকে ভার্চ্যুয়াল সভায় যুক্ত হয়ে প্রধানমন্ত্রী বলেন, ঢাকা-১০ এ ফালু (মোসাদ্দেক আলী ফালু) ইলেকশন করেছিল যে ইলেকশনের চিত্র সবার নিশ্চয় মনে আছে। মাগুরা ইলেকশন হয়-যে ইলেকশন নিয়েই আন্দোলন করে আমরা খালেদা জিয়াকে উৎখাত করেছি। মিরপুর ইলেকশন-প্রত্যেকটা নির্বাচনের চিত্রই আমরা দেখেছি।

প্রধানমন্ত্রী বলেন, ’৭৭ সালের ‘হ্যাঁ-না’ ভোট, ’৭৮ এর রাষ্ট্রপতি এবং ’৭৯ এর সাধারণ নির্বাচন, ’৮১ এর নির্বাচন প্রত্যেকটা নির্বাচনই আমাদের দেখা।

পাশাপাশি ১৯৯৬ সালের ১৫ ফেব্রুয়ারির ভোটারবিহীন নির্বাচনেরও উল্লেখ করেন তিনি।

তিনি বলেন, বর্তমানে নির্বাচন ব্যবস্থার যে উন্নয়ন সেগুলো আওয়ামী লীগের সিদ্ধান্ত এবং চিন্তা চেতনার বাস্তবায়ন।

এ প্রসঙ্গে নির্বাচন ব্যবস্থার আধুনিক ও যুগোপযোগিকরণে ছবিসহ ভোটার তালিকা, স্বচ্ছ ব্যালট বাক্স এবং ইভিএম ব্যবস্থা বলবৎ করারও তিনি উল্লেখ করেন।

তিনি বলেন, এ সবের মাধ্যমে জনগণের ভোটে নির্বাচিত আওয়ামী লীগ সরকার জনগণের ভোটের অধিকার আবার জনগণের কাছেই ফিরিয়ে দিয়েছে। আর জনগণের শক্তিতে ক্ষমতায় আছি বলেই জনগণের জন্য আমরা কাজ করতে পেরেছি।

সর্বশেষ - সকল নিউজ

আপনার জন্য নির্বাচিত

ভারতে ৩৯৫০ টন ইলিশ রপ্তানির অনুমোদন

সামরিক শাসকরা ক্ষমতায় এলে গণতন্ত্র পিছিয়ে যায় : প্রধানমন্ত্রী

প্রবাসীদের টাকা পাঠানো সহজ করার নির্দেশ প্রধানমন্ত্রীর

খালেদা জিয়া বাংলাদেশের স্বাধীনতাকে বিশ্বাস করে না : প্রধানমন্ত্রী

আন্তর্জাতিক চাপ নিয়ে আমরা কোনো চাপই অনুভব করি না: পররাষ্ট্রমন্ত্রী

কোনো শক্তিই নির্বাচনকে বানচাল করতে পারবে না: কৃষিমন্ত্রী

রাজনৈতিক অস্থিরতার সুযোগ নিয়ে জঙ্গি হামলার আশঙ্কা

নারীদেরকে বিজ্ঞানে উৎকর্ষতা লাভের সুযোগ দিতে বৈশ্বিক প্রচেষ্টার আহ্বান প্রধানমন্ত্রীর

বিএনপির ঘরে হতাশা, ভেঙে গেছে জোটের হাট: কাদের

বিমানবন্দরে সক্রিয় ডলার পাচারের শক্তিশালী চক্র