বিএনপি নেতারা অহংকারী, কাজকর্ম মূর্খের মতো: জাফরুল্লাহ চৌধুরী


  প্রকাশিত হয়েছেঃ   18 November 2020

নিউজ ডেস্ক: বিএনপি একটি বৃহৎ জনসমর্থিত রাজনৈতিক দল হিসেবে এই দলের নেতাদের অহংকার বেশি এবং সে কারণে বিএনপি রাজনীতিতে কৌশল গ্রহণ করতে চায় না। রাজনীতিতে শুধু জনপ্রিয়তা একমাত্র ভরসা নয়। এখানে কৌশল বড় হাতিয়ার। বিএনপি নেতারা নিজেদের খুব জ্ঞানী ভাবেন কিন্তু তাদের কাজকর্ম মূর্খের মতো। তাই বিএনপিকে ঘুরে দাঁড়াতে হলে নেতাদের যথেষ্ট কৌশলী হতে হবে, দায়িত্বশীল নেতাদের জনবান্ধব হতে হবে। তবেই হয়তো ব্যর্থতার বৃত্ত থেকে বের হতে পারবে বিএনপি, এমনটাই মনে করেন গণস্বাস্থ্য কেন্দ্রের প্রতিষ্ঠাতা ডা. জাফরুল্লাহ চৌধুরী।

বিএনপিপন্থী বুদ্ধিজীবী ডা. জাফরুল্লাহর মতে, রাজনীতিতে অনভিজ্ঞ তারেক রহমানকে দলের গুরুত্বপূর্ণ আসনে বসিয়ে বিএনপির সবচেয়ে বড় ক্ষতি করেছেন বেগম জিয়া। ক্ষমতায় থাকাকালীন হাওয়া ভবনের কার্যকলাপ নিয়ন্ত্রণ করতে না পেরে দলের ব্যর্থতা এসেছিল। আগের আমলের বিতর্কিত মাগুরার আসন ছেড়ে দিলেও বিএনপির কোনো ক্ষতি ছিল না। অথচ সেখানেও তারা সঠিক সিদ্ধান্ত নিতে পারেনি। দুর্নীতির রাশ টানতে ব্যর্থ হওয়া বেগম জিয়াও দুর্নীতিতে জড়িয়ে জেল খেটেছেন। বর্তমান পরিস্থিতিতে বিএনপি দল পরিচালনার ক্ষেত্রে বড় সমস্যায় আছে। সঠিক সিদ্ধান্ত নিতে না পারলে বিএনপি অস্তিত্বের সংকটে পড়তে পারে। তাই এ ক্ষেত্রেও বিএনপিকে যথেষ্ট কৌশলী হতে হবে।

তিনি আরো বলেন, জনগণের আকাঙ্ক্ষা অনুযায়ী বিএনপিকে জামায়াতের সঙ্গ ত্যাগ করতে হবে। জামায়াতের যত অপরাধ সবকিছু বর্তমানে বিএনপির ঘাড়ে চাপানো হচ্ছে। আবার জামায়াতের রাজনীতির সুবিধা ভোগ করছে আওয়ামী লীগ। বিএনপিকে বুঝতে হবে, জামায়াত ছাড়াই তারা অনেক শক্তিশালী। জামায়াত সরাসরি মুক্তিযুদ্ধের বিপক্ষের দল, তাই স্বাধীন বাংলাদেশে তাদের রাজনীতি করার অধিকার থাকতে পারে না। বিএনপিকে ঘোষণা দিতে হবে, ক্ষমতায় গিয়ে তারা জামায়াতের রাজনীতি নিষিদ্ধ করবে। একই সঙ্গে বিএনপিকে একটি নতুন শক্তিশালী জোট গঠনের দিকে নজর দিতে হবে। এভাবেই বিএনপি ঘুরে দাঁড়াতে পারে। আর অবশ্যই বিএনপির দায়িত্বশীল নেতাদের অহংকার ত্যাগ করে জন-বান্ধব নীতি অনুসরণ করতে হবে। মনে রাখতে হবে, অহংকার কিন্তু পতনের মূল। আর নেতাদের অহংকারের কারণেই আজকে বিএনপির এমন অধঃপতন ঘটেছে।

আপনার মতামত লিখুন :