আইএসআই এর পেইড এজেন্ট মেজর (অব.) দেলোয়ার!


  প্রকাশিত হয়েছেঃ   22 October 2020

নিউজ ডেস্ক: বেরিয়ে এলো থলের বিড়াল। বিশ্বের সব থেকে বিতর্কিত গোয়েন্দা সংস্থা পাকিস্তানের আইএসআই (ISI) এর নির্দেশনা ও অর্থায়নে কানাডায় বসে বাংলাদেশবিরোধী প্রোপাগান্ডা ছড়ান বিএনপির ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান তারেক রহমানের দালালখ্যাত অবসরপ্রাপ্ত মেজর দেলোয়ার হোসেন। Netra News’র প্রধান সম্পাদক তাসনিম খলিল তার ভেরিফাইড ফেসবুক পেজ-এ পোস্টের মাধ্যমে এই তথ্য নিশ্চিত করেছেন।

রোববার (১৮ অক্টোবর) দেওয়া ওই পোস্টে তিনি CJ Post নামক একটি ফেসবুক পেইজের নাম উল্লেখ করে বলেন, বাংলাদেশকে ঘিরে ইনফরমেশন ওয়ারফেয়ার চলছে। CJ Post পেজটি পাকিস্তান থেকে পরিচালিত হয়।

গোপন সূত্রে জানা গেছে, এই পেজটির মাধ্যমে পাকিস্তান থেকে বাংলাদেশে অ্যাড স্পনসর করে বিভ্রান্তিমূলক, অসত্য ও সরকারবিরোধী অপপ্রচার চালানো হচ্ছে। যার অ্যাড স্পনসর Id: 3309238142526801 । পেজ ট্রান্সপারেন্সি থেকে জানা যায়, পেজটি যে ৭জন ব্যক্তি দ্বারা পরিচালিত হয় তারা প্রত্যেকেই পাকিস্তানের নাগরিক ও আইএসআই সদস্য।

পেইজটি ঘুরে দেখা গেছে, পাকিস্তানি গোয়েন্দা সংস্থাটি মূলত বর্হিবিশ্বের কাছে বাংলাদেশের ভাবমূর্তি ক্ষুণ্ণ ও বর্তমান সরকারের ঈর্ষণীয় সফলতাকে প্রশ্নবিদ্ধ করতেই ৭১’র মহান মুক্তিযুদ্ধে পরাজিত শক্তি হিসেবে এই প্রতিহিংসাপরায়ণ আচরণ করছে। আর এ কাজে বিশেষ মহলকে মোটা অংকের মাসোয়ারায় সহায়তা করছে দেশবিরোধী কর্মকাণ্ডে সম্পৃক্ততার কারণে সেনাবাহিনী থেকে অবাঞ্ছিত ঘোষিত মেজর দেলোয়ার।

দায়িত্বশীল সূত্রের তথ্যমতে, সেনাবাহিনীর এই চাকরিচ্যুত কর্মকর্তা বর্তমানে বিএনপি-জামায়াতের পেইড এজেন্ট হয়ে তাদের ‘গুজব সেল’র একজন সক্রিয় কর্মী হিসেবে কাজ করছেন। শুধু তাই নয়, দেশের সকল সুবিধা ভোগ করে কানাডায় অবস্থানকারী এই পাকি প্রেতাত্মা সরকার পতনের স্বপ্নরোগেও ভীষনভাবে আক্রান্ত। এ কারণে তিনি তারেক রহমানের শিখিয়ে দেয়া বুলি অনুকরণ করে বিতর্কিত পাকিস্তানি গোয়েন্দা সংস্থা আইএসআই (ISI) এর হয়ে দীর্ঘদিন ধরে রাষ্ট্র, সেনাবাহিনী ও সরকারব্যবস্থা নিয়ে সোশ্যাল মিডিয়ায় গুজব ও অপপ্রচার চালিয়ে আসছেন।

এ ব্যাপারে দেশের রাজনৈতিক বিশ্লেষকরা বলছেন, মেজর (অব.) দেলোয়ার একজন আপাদমস্তক ভণ্ড, প্রতারক ও সুবিধাবাদী। তাই তার মিথ্যাচারে বিভ্রান্ত না হয়ে বরং তার মতো ষড়যন্ত্রকারী ও ফেসবুক জিহাদিকে প্রত্যাখ্যান করুন।

রাজনৈতিক বিজ্ঞজনরা আরও বলেন, পাকিস্তান বরাবরই বাংলাদেশের খারাপ চেয়ে আসছে। যার উদাহরণ ৭১’র মহান মুক্তিযুদ্ধ। তারই ধারাবাহিকতায় দেশটির গোয়েন্দা সংস্থাটি আবারও তৎপর হয়ে উঠেছে বাংলাদেশের ক্ষতিসাধনে। ফেসবুকে বুস্টিংয়ের মাধ্যমে মিথ্যা, ভিত্তিহীন ও বানোয়াট তথ্য প্রকাশ করছে। এমতাবস্থায় সরকার ও জনগণ সবাইকে সতর্ক থেকে তাদের অপতৎপরতাকে রুখে দিতে হবে।

সম্পাদকীয়

আপনার মতামত লিখুন :