logo
সোমবার , ১ আগস্ট ২০২২ | ৩১শে শ্রাবণ, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ
  1. অন্যান্য
  2. অর্থনীতি
  3. আন্তর্জাতিক
  4. ক্যারিয়ার ভাবনা
  5. খেলা
  6. জাতীয়
  7. টেক নিউজ
  8. দেশের খবর
  9. প্রবাস
  10. ফিচার
  11. বিনোদন
  12. রাজনীতি
  13. লাইফস্টাইল
  14. সম্পাদকীয়
  15. সাফল্য

বিদেশে ভ্রমণকারীদের জন্য ডলার লিমিট কমানোর প্রস্তাব

প্রতিবেদক
admin
আগস্ট ১, ২০২২ ৯:৪২ পূর্বাহ্ণ

রাশিয়া-ইউক্রেন যুদ্ধের কারণে চলমান ডলার সংকট নিরসনে বাংলাদেশ ব্যাংকের গভর্নরকে বেশ কয়েকটি প্রস্তাব দিয়েছেন চট্টগ্রাম চেম্বার অব কমার্স অ্যান্ড ইন্ডাস্ট্রির সভাপতি মাহবুবুল আলম। আমদানির ক্ষেত্রে বাংলাদেশ ব্যাংক নির্ধারিত ডলার রেট ৯৪.৭৫ টাকা প্রত্যেক ব্যাংক যেন দেয় এবং বিদেশে ভ্রমণের ক্ষেত্রে ডলার লিমিট কমানোসহ বেশ কয়েকটি প্রস্তাব দেন তিনি।

রবিবার (৩১ জুলাই) সকালে ঢাকার বাংলাদেশ ব্যাংক কার্যালয়ে নবনিযুক্ত গভর্নর আব্দুর রউফ তালুকদারের সঙ্গে মতবিনিময়কালে তিনি এসব প্রস্তাব দেন। এ সময় চট্টগ্রাম চেম্বারের সিনিয়র সহ-সভাপতি তরফদার মো. রুহুল আমিন উপস্থিত ছিলেন।

চেম্বার সভাপতি ডলারের নির্ধারিত রেট নিশ্চিত করার জন্য প্রয়োজনে কঠোর মনিটরিং চালু করা, নির্দেশনা অমান্য করলে এডি/ব্যাংকগুলোকে শাস্তি ও বড় অঙ্কের জরিমানার আওতায় আনা, মানি এক্সচেঞ্জগুলোকে কঠোরভাবে মনিটরিং করা, ক্রেতাদের তথ্য সংগ্রহ ও যাচই করা, বিধিবহির্ভূত ও দলিল প্রমাণ ছাড়া কারও কাছে ডলার পাওয়া গেলে তা বাজেয়াপ্ত করার দাবি জানান। একইসঙ্গে ট্যুরিস্ট ভিসায় বিদেশ ভ্রমণের ক্ষেত্রে ডলার নেওয়ার লিমিট কমানো ও ডলার ক্রয়-বিক্রয়ের মূল্যের ব্যবধান ১-২ টাকার মধ্যে রাখার প্রস্তাব রাখেন তিনি।

মাহবুবুল আলম নবনিযুক্ত গভর্নরকে অভিনন্দন জানিয়ে চট্টগ্রাম চেম্বারের জন্য ২৫ হাজার কোটি টাকার পুনঃঅর্থায়ন স্কিম ও প্রণোদনা প্যাকেজের আওতায় ২০ হাজার কোটি টাকা ও বড় শিল্প প্রতিষ্ঠানের জন্য ৩০ হাজার কোটি টাকা ঘোষণা করায় বাংলাদেশ ব্যাংক ও সরকারকে ধন্যবাদ জানান।

তৃতীয় পর্যায়ে চট্টগ্রাম চেম্বারের জন্য ঘোষণা করা প্রণোদনার এই ঋণ সুবিধা যাতে বেশি সংখ্যক প্রতিষ্ঠান পেতে পারে সেজন্য একক প্রতিষ্ঠান অনুযায়ী ঋণের সর্বোচ্চ সীমা নির্ধারণ করে দিতে প্রস্তাব রাখেন তিনি।

একইসঙ্গে ঋণ প্রদানে ব্যাংকসমূহের তথ্য যাচাইয়ের সুবিধা ও অর্থনৈতিক শৃঙ্খলা তৈরি করতে এসএমই ফাউন্ডেশন ও জেলা চেম্বারের সমন্বয়ে চেম্বারের প্রতিষ্ঠানগুলোর জন্য ব্যাংকের কাছে গ্রহণযোগ্য হয় এমন আর্থিক বিবরণীর হিসাব রাখার স্ট্যান্ডার্ড ফরমেট তৈরি করা ও সংশ্লিষ্ট প্রশিক্ষণ দেওয়ার ওপর গুরুত্বারোপ করেন।

চেম্বারের সিনিয়র সহ-সভাপতি তরফদার মো. রুহুল আমিন ডলারের রিজার্ভ বৃদ্ধির আরেকটি সম্ভাব্য উৎস চিহ্নিত করে বলেন, ‘অনেক বাংলাদেশি ব্যবসায়ী বিদেশে কোম্পানি গঠনের মাধ্যমে সফলভাবে ব্যবসা পরিচালনা করে বৈদেশিক মুদ্রা আয় করছেন। কিন্তু বেশিরভাগ ক্ষেত্রে নিয়ম না বোঝার কারণে আইনগতভাবে উক্ত ব্যবসা থেকে অর্জিত মুনাফার বৈদেশিক মুদ্রা দেশে আনতে সক্ষম হচ্ছে না।’

আব্দুর রউফ তালুকদার চট্টগ্রাম চেম্বারের প্রস্তাবনাসমূহ বিবেচনায় নিয়ে চলমান পরিস্থিতিতে সবাইকে ধৈর্য ধারণের পাশাপাশি চেম্বারের মাধ্যমে ব্যবসায়ীদের সহযোগিতা কামনা করেন।

আগামী দুই মাসের মধ্যে ডলার বিনিময় হারের চলমান অস্থিতিশীলতা ভারসাম্যতায় ফিরে আসবে বলে তিনি আশাবাদ ব্যক্ত করেন। গভর্নর সব বিভাগের ব্যবসায়ীদের সঙ্গে মতবিনিময়ের অংশ হিসেবে দ্রুত চট্টগ্রাম চেম্বারে ব্যবসায়িক নেতাদের সঙ্গে সাক্ষাৎ করবেন বলেও জানান।

সর্বশেষ - দেশের খবর