আবারো হোঁচট খেল বিএনপি!

adminadmin
  প্রকাশিত হয়েছেঃ   11 February 2021

নিউজ ডেস্ক: আল জাজিরার মিথ্যা প্রতিবেদনের পরও বিএনপি আন্দোলন করতে ব্যর্থ হয়েছে। বরং তারেক রহমানের বেকুব মার্কা সিদ্ধান্তের কারণে বেহাল হয়ে পড়েছে বিএনপি। দুর্নীতির দায়ে দণ্ডিত হয়ে এক যুগ ধরে লন্ডনে পলাতক রয়েছেন তিনি। তবে এরপরও বিএনপির রাজনীতিতে তাকেই নাটের গুরু বলছেন সংশ্লিষ্টরা। আর তারেকের কারণেই বার বার হোঁচট খাচ্ছে বিএনপি।

বিএনপির একাধিক শীর্ষ নেতার মতে, দলের সিনিয়র নেতাদের প্রতি অসম্মান, অন্য দল ও প্রশাসনের দায়িত্বশীলদের তুচ্ছ-তাচ্ছিল্য এবং কর্মীদের ওপর প্রভুত্বের মানসিকতার কারণে নিজ দলের নেতা-কর্মীদের কাছেই স্বেচ্ছাচারী ভিলেনে পরিণত হয়েছেন তারেক রহমান।

একাধিক গোপন সূত্র বলছে, তারেক রহমানের কারণেই প্রধানমন্ত্রী থাকাকালে নিজের ত্রাণ তহবিল থেকে টাকা সরিয়েছেন খালেদা জিয়া। আর এ কারণেই জিয়া অরফানেজ ট্রাস্ট ও জিয়া চ্যারিটেবল ট্রাস্ট দুর্নীতি মামলায় অভিযুক্ত হয়ে খালেদা জিয়ার সাজা হয়।

তারেকের বানানো হওয়া ভবনের কারণেও ব্যাপকভাবে সমালোচিত হন খালেদা জিয়া। তবে ছেলের বিভিন্ন উদ্ধত আচরণ আর স্বেচ্ছাচারী মানসিকতাকে কখনই সামাল দিতে পারেননি খালেদা জিয়া। ফলে তারেকের কারণেই বার বার হোঁচট খেয়েছে বিএনপির সব পরিকল্পনা।

আর এসব কারণে বিএনপির নীতি নির্ধারক পর্যায়ের নেতারা তারেক রহমানের ওপর ভীষণ ক্ষুব্ধ। দলের অনেক সিনিয়র নেতা তারেক রহমানের কারণে এখন একেবারেই নিষ্ক্রিয় হয়ে পড়েছেন।

এদিকে দলীয় সূত্রে জানা গেছে, বিভিন্ন সময়ে নেতা-কর্মীদের মাঠে নামতে অনীহার পেছনেও তারেক রহমানের স্বেচ্ছাচারকে দায়ী করেছেন দলের অনেক শীর্ষ নেতা। খালেদা জিয়া নাকি তারেক রহমান, বিএনপি এখন কে চালাচ্ছেন? দলীয় পরিমণ্ডলের আলোচনায় এ প্রশ্নটি হরহামেশাই উঠছে।

সূত্র বলছে, খালেদা জিয়ার অনেক সিদ্ধান্তই আঙুলের ইশারায় উল্টে দিচ্ছেন তারেক রহমান। দল বা অঙ্গ সংগঠনগুলোর নতুন কমিটির অনুমোদন তারেকই দিচ্ছেন। এক্ষেত্রে তার আস্থাভাজনদের কেউ বা ঘনিষ্ঠজনদের পরিচিতরাই বিভিন্ন দায়িত্ব ও পদ দখলের সুযোগ পাচ্ছেন। আর এর মধ্য দিয়ে অযোগ্যদের হাতে চলে যাচ্ছে বিএনপির নেতৃত্ব।

নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক বিএনপির এক সময়ের প্রভাবশালী নেতা বলেন, সিনিয়রদের প্রতি অশ্রদ্ধা আর অসম্মানের লাগাতার নজির গড়ে দলের সর্বনাশ করেছেন তারেক রহমান। তার কারণেই দেশের মানুষের কাছে বিএনপির ভাবমূর্তির ছিটেফোঁটাও নেই।

তিনি বলেন, এক সময়ে দলের সিনিয়র নেতাদের ডেকে নিয়ে অকারণেই হাওয়া ভবনে ঘণ্টার পর ঘণ্টা বসিয়ে রাখতেন তারেক। শুধু তাই নয়, স্রেফ নিজের ক্ষমতা জাহিরের জন্য ধমকেছেন আমলা, পুলিশসহ বিভিন্ন পর্যায়ের সরকারি কর্মকর্তাদের। প্রতিদ্বন্দ্বী রাজনৈতিক দলের নেতাদের প্রতিও তার আচরণ ছিল তুচ্ছ-তাচ্ছিল্যপূর্ণ। সব মিলিয়ে তারেক রহমান বর্তমানে বিএনপির রাজনীতিতে গলার কাঁটায় পরিণত হয়েছেন।

আপনার মতামত লিখুন :